Prottashitoalo

দেশের সব মেডিকেল কলেজ খুলছে শিগগিরই

0 13

স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাসহ কিছু শর্ত সাপেক্ষে শিগগিরই সারাদেশের সব মেডিকেল কলেজ খুলছে। আগামী ২১ আগস্ট বা কাছাকাছি তারিখ থেকে এমবিবিএস, বিডিএস কোর্সের দ্বিতীয় বর্ষ ও পঞ্চম বর্ষের ক্লাস চালুর পক্ষে মত দিয়েছে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটি।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য শিক্ষা বিভাগের এক চিঠির জবাবে জাতীয় পরামর্শক কমিটি এই মতামত দিয়েছে।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক এ এইচ এম এনায়েত হোসেন শনিবার সমকালকে বলেন, ‘দিনক্ষণ এখনও ঠিক হয়নি, তবে দ্রুতই মেডিকেল কলেজ খুলে দেওয়া হবে।’

তিনি জানান, মেডিকেল কলেজে যারা প্রথম বর্ষ থেকে দ্বিতীয় বর্ষে উঠবে তাদের ক্লাসের সুযোগ দিতে হবে। এ ছাড়া যারা চতুর্থ বর্ষের বার্ষিক পরীক্ষা দেবে তাদেরও সুযোগ দিতে হবে। নতুবা দেশে চিকিৎসক সংকট দেখা দেবে। সে কারণেই কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির কাছে আবেদন জানানো হয়েছিল।

এর আগে শুক্রবার রাতে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় পরামর্শক কমিটির সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ সহিদুল্লা স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য শিক্ষা বিভাগ ২১ আগস্ট বা কাছের যেকোনো দিন থেকে এমবিবিএস/বিডিএস কোর্সের দ্বিতীয় বর্ষ ও পঞ্চম বর্ষ, শেষ বর্ষের ক্লাস চালুকরণের বিষয়ে জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির মতামত চেয়ে পত্র পাঠিয়েছে। কমিটির সদস্যরা এ বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন। এরই মধ্যে এ সব ছাত্র/ছাত্রীদের দুই ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা সাপেক্ষে প্রাথমিকভাবে এ দুই বর্ষের ক্লাস শুরু করার পক্ষে কমিটি মত দেয়।’

যেসব শর্ত দিয়েছে:

ক) ক্লাস শুরুর আগে সব ছাত্র/ছাত্রীদের সংক্রমণ প্রতিরোধ ও নিয়ন্ত্রণের উপর প্রশিক্ষণ করাতে হবে।

খ) শতভাগ সঠিকভাবে মাস্ক পরা ও শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিত করাসহ স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করতে হবে।

গ) হাসপাতালের ওয়ার্ডে ক্লাসে ছাত্র/ছাত্রীদের সঠিকভাবে সুরক্ষা সামগ্রী ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে।

ঘ) ছাত্র/ছাত্রীদের সংক্রমণের ওপর নজরদারি রাখতে হবে।

ঙ) সংক্রমিত ছাত্র/ছাত্রীদের চিকিৎসা/আইসোলেশন এবং তাদের সংস্পর্শে আসা ছাত্র/ছাত্রীদের ১৪দিন কোয়ারিন্টেনের ব্যবস্থা করতে হবে।

প্রসঙ্গত, দেশে গত বছরের ৮ মার্চে করোনাভাইরাস সংক্রমণ ধরা পড়ার পর ১৭ মার্চ থেকে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে, যা এখনও চলমান। তবে করোনার সংক্রমণ ঝুঁকির মধ্যে অন্য পাবলিক পরীক্ষা নিতে না পারলেও এবারের মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হয়েছে। এখন মেডিকেল কলেজও খুলছে শিগগির।

Comments
Loading...