Prottashitoalo

এভারেস্ট থেকে করোনা সংক্রমণ নিয়ে ফিরছেন অভিযাত্রীরা

0 9

এভারেস্ট বেস ক্যাম্পে করোনা আক্রান্ত হচ্ছেন অভিযাত্রীরা। সংক্রমণ নিয়েই সেখান থেকে নেমে আসছেন। যদিও নেপাল সরকারের পক্ষ থেকে এই দাবি পুরোপুরি অস্বীকার করা হয়েছে।

গত এপ্রিল মাসে পৃথিবীর সর্বোচ্চ শৃঙ্গের বেস ক্যাম্পে অসুস্থ হয়ে পড়েন জংবু শেরপা নামের এক গাইড। কাশি-জ্বর তো ছিলই, তার সঙ্গে দেখা দেয় অন্য উপসর্গও। ১৭, ৫৯০ ফুট উচ্চতায় তার শারীরিক পরিস্থিতি দ্রুত খারাপ হতে থাকে। তাড়াতাড়ি তাকে হেলিকপ্টারে করে নীচে নামিয়ে আনা হয়। হাসপাতালে ভর্তি করার পর দেখা যায়, তিনি করোনা আক্রান্ত। ১ সপ্তাহ হাসপাতালে এবং ৬ দিন বাড়িতে থাকার পরেই আবার তাকে পাঠিয়ে দেয়া হয় বেস ক্যাম্পে।

মহামারির কারণে তার মতো দক্ষ গাইডদের অনেকেই এখন কাজ করতে পারছেন না। ফলে পুরোপুরি সুস্থ হয়ে ওঠার আগেই তাকে পাঠিয়ে দেয়া হয় পাহাড়ে। আবারো চরম আবহাওয়ার মধ্যে তিনি গিয়ে পৌঁছন। এবং অনেকের ধারণা, সম্পূর্ণ সুস্থ না হওয়ায় তিনি সঙ্গে করে নিয়ে যান করোনার জীবাণুও। এর পরেই ওই ১৭, ৫৯০ ফুট উচ্চতায় একের পর এক অভিযাত্রী সংক্রমিত হতে শুরু করেন। তাঁবুর মতো ছোট জায়গায় গাদাগাদি করে থাকার ফলে সংক্রমণ ছড়িয়েছে আরো দ্রুত।

আরো পড়ুন: ইরাক-সিরিয়ায় মার্কিন বিমান হামলায় নিহত ৫

যদিও নেপাল সরকার এই তথ্য অস্বীকার করেছে। তাদের মতে, এভারেস্ট বেস ক্যাম্পে কোনো কোভিড সংক্রমণের চিহ্ন নেই। কয়েক জন নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন। পাহাড়ের শুকনো বাতাসে এটা এমন কিছু নতুন নয়।

আমেরিকার সংবাদমাধ্যম নিউ ইয়র্ক টাইমস অভিযাত্রীদের সোস্যালমাধ্যম খুঁজে এমন ৫৯ জনকে চিহ্নিত করতে পেরেছে, যারা বেস ক্যাম্পেই সংক্রমিত হন। তবে আক্রান্তের সংখ্যাটা এর চেয়ে অনেক বেশি বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। সংবাদমাধ্যমের পক্ষ থেকে শেরপাদের সঙ্গে কথা বলা হয়। নাম গোপন রেখে তারা প্রত্যেকেই জানিয়েছেন, বেস ক্যাম্পে প্রতিটি অভিযাত্রী দলের ৩-৪ জন করে কোভিডে আক্রান্ত। ইতিমধ্যেই বেশ কয়েকটি পর্বতারোহন সংস্থা এভারেস্টে তাদের অভিযান বাতিল করেছে। তারপরেও অবশ্য নেপাল সরকার সংক্রমণের কথা মানতে চায়নি।

ওয়াকিবহাল মহলের ধারণা, এভারেস্ট অভিযানের মৌশুম থেকে নেপাল সরকার বিপুল অর্থ রোজগার করে। দরিদ্র দেশ হওয়ার কারণে, গোটা বছরের জন্য এই সুযোগ হারাতে চায় না তারা। তাই বেস ক্যাম্পে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার কথা তারা মানতে নারাজ।

সরকারি ভাবে না মানলেও এভারেস্ট বেস ক্যাম্প থেকে নেমে আসা অভিযাত্রীদের মধ্যে দলে দলে মানুষ কাঠমাণ্ডুর হাসপাতালে কোভিড সংক্রমণ নিয়ে ভর্তি হচ্ছেন। সংক্রমণ নিয়ে চরম আবহাওয়ায় কাটানোর ফলে তাদের অনেকের অবস্থাই বেশ খারাপ। ফলে বেসরকারিভাবে হলেও বেস ক্যাম্পে সংক্রমণের বিষয়টি এখন পরিষ্কার। সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

Comments
Loading...